জামাইয়ের মিষ্টি ভালোবাসায়, এ কি হাল হলো শাশুড়ির? দেখুন…….

বাবলু প্রমাণিক দক্ষিণ 24 পরগনা :- একি শাশুড়ি জামাই সম্পর্ক নাকি সাপে নেউলের?না হলে, কোন জামাই তার শাশুড়ির সাথে এমন কাণ্ড ঘটাতে পারে?কিন্তু, জামাইয়ের কারণে আজ শাশুড়ির পরিণতির আসল কারণ কি? দেখুন…..ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনা জেলার সন্দেশখালি থানার অন্তর্গত বেড়মজুর কাঠপোল এলাকায়।ঘটনার বিষয়ে আক্রান্ত পরিবারের লোকজন সন্দেশখালি থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। তদন্ত শুরু করেছে সন্দেশখালি থানার পুলিশ। স্থানীয় সুত্রে জানা গিয়েছে গত প্রায় ৭ বছর আগে বেড়মজুর গ্রামের রাজিবুল লস্করের সাথে ঝুপখালির রুবিনা’র বিয়ে হয়। দম্পতির এক পুত্র সন্তান রয়েছে। অভিযোগ বিয়ের পর থেকেই যৌতুক ও টাকাপয়সা নিয়ে স্ত্রীর ওপর অকথ্য অত্যাচার করতো রাজিবুল।

এমনকি প্রতিনিয়ত মদ্যপ অবস্থায় বেধড়ক মারধর করে মেরে ফেলারও হুমকি দিতো।শনিবার সন্ধ্যায় অতর্কিতে স্ত্রী রুবিনা’র ওপর অকথ্য অত্যাচার করে বেধড়ক মারধর করে রাজিবুল ও তার বাবা আলাউদ্দিন।খবর পেয়ে মেয়ের বাড়িতে হাজীর হয় মমতাজ। অভিযোগ তাকে বেধড়ক মারধর করে জামাই ও মেয়ের শ্বশুর।বেধড়ক মারধোরের ফলে গুরুতর জখম হয় মমতাজ মিস্ত্রী।মিস্ত্রী পরিবারের লোকজন খবর পেয়ে তাকে উদ্ধার করে।চিকিৎসার জন্য স্থানীয় সরবেড়িয়া হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে রাতেই ক্যানিং মহকুমা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করেন চিকিৎসকরা।